ঢাকা, মঙ্গলবার, ১২ মাঘ ১৪২৭, ২৬ জানুয়ারি ২০২১, ১২ জমাদিউস সানি ১৪৪২

জাতীয়

রূপগঞ্জে সৎ মাকে গলাকেটে হত্যা, ছেলের আত্মসমর্পণ

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯১৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৩, ২০২১
রূপগঞ্জে সৎ মাকে গলাকেটে হত্যা, ছেলের আত্মসমর্পণ

নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে সৎ মাকে গলাকেটে হত্যা করেছে এক পাষাণ্ড ছেলে।

বুধবার (১৩ জানুয়ারি) সকালে ছেলে আমির হোসেন থানায় এসে আত্মসমর্পণ করেন।

এরআগে মঙ্গলবার (১২ জানুয়ারি) রাতে উপজেলার ভুলতা ইউনিয়নের লাভরাপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। ঘটনাটি এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করেছে। পারিবারিক কলহের জের ধরেই মানসিক প্রতিবন্ধী সৎ মা সেলিনা আক্তারকে (৪০) গলাকেটে হত্যা করা হয়। নিহত সেলিনা আক্তার উপজেলার লষ্করদি এলাকার তাহের আলীর মেয়ে।

পুলিশ ও নিহতের পরিবার সূত্রে জানা যায়, প্রথম স্ত্রী মারা যাওয়ার পর গত তিন বছর আগে উপজেলার লাভরাপাড়া এলাকার নুরু মিয়ার সঙ্গে সেলিনা আক্তারের বিয়ে হয়। বিয়ের পর জানা যায় সেলিনা আক্তার মানসিক প্রতিবন্ধী। নুরু মিয়ার আগের সংসারের ছোট ছেলে আমির হোসেনের স্ত্রী বিথী আক্তারের সঙ্গে সৎ মা সেলিনা আক্তারের প্রায় সময় বাকবিতণ্ডা হতো।

গত সোমবার (১১ জানুয়ারি) বিথীর তার শাশুড়ির সঙ্গে সাংসারিক বিভিন্ন বিষয় নিয়ে বাকবিতণ্ডা হয়। পরে সে বাবার বাড়ি চলে যায়। মঙ্গলবার রাতে বাবা নুরুর অনুপস্থিতিতে সৎ মায়ের সঙ্গে আমির হোসেন এসব বিষয় নিয়ে বাকবিতণ্ডায় জড়িয়ে পড়েন। একপর্যায়ে সেলিনা আক্তার ধারালো ছুরি নিয়ে ছেলের দিকে তেড়ে যান। এসময় আমির হোসেন সৎ মার হাত থেকে ছুরি কেড়ে নিয়ে গলাকেটে হত্যা করে।

খবর পেয়ে রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহমুদুল হাসান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এসময় আমির হোসেন পলাতক ছিলেন। তবে বুধবার সকালে তিনি রূপগঞ্জ থানায় এসে পুলিশের কাছে আত্মসমপর্ণ করেন।

ওসি মাহমুদুল হাসান বলেন, আমির হোসেন থানায় এসে আত্মসমপর্ণ করেছেন। তিনি হত্যাকাণ্ডের কথা স্বীকার করেছেন। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৯১১ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৩, ২০২১
ওএইচ/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa