ঢাকা, রবিবার, ১৫ ফাল্গুন ১৪২৭, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৬ রজব ১৪৪২

জাতীয়

হলসহ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়ার দাবি

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫৪২ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৮, ২০২১
হলসহ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়ার দাবি

ঢাকা: অবিলম্বে হলসহ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়ার দাবি জানিয়ে বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে নাগরিক ছাত্র ঐক্য।

সোমবার (১৮ জানুয়ারি) দুপুর ১২ টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে এ বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়৷ সমাবেশে নাগরিক ছাত্র ঐক্যের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মোশাররফ হোসেন অবিলম্বে হলসহ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়ার দাবি জানান।

তিনি বলেন, হল খুলে না দিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়সহ অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ে পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত ভুল৷ জানুয়ারির মধ্যে শিক্ষার্থীদের তালিকা করে প্রত্যেকের ভ্যাকসিন নিশ্চিত করে ফেব্রুয়ারির শুরুতে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দিতে হবে৷ অন্যথায় কঠোর আন্দোলন করা হবে৷

সরকারের সমালোচনা করে ছাত্র ঐক্যের সাধারণ সম্পাদক তরিকুল ইসলাম বলেন, উন্নয়নের ফুলঝুরি ছুটিয়ে জনগণকে বিভ্রান্ত করা যাবে না। তিনি বলেন, ছাত্রসমাজকে অশিক্ষিত করে একটা মেরুদণ্ডহীন রাষ্ট্র নির্মাণের চেষ্টা করছে সরকার।

'৬২, '৬৯, '৭১ এবং '৯০ এর গণআন্দোলনের প্রসঙ্গ টেনে তিনি বলেন, সরকার আন্দোলনের ভয়ে ছাত্রসমাজকে ঘরবন্দি করে রাখার ব্যর্থ চেষ্টা করছে। কিন্তু ছাত্রসমাজ প্রস্তুত হচ্ছে। অবিলম্বে জনগণের ভাত-ভোটের অধিকার, শিক্ষার্থীদের অধিকার ফিরিয়ে না দিলে গণঅভ্যুত্থানের মাধ্যমে সরকার পতনের হুঁশিয়ারি দেন।

নাগরিক ছাত্র ঐক্যের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মোশাররফ হোসেনের সভাপতিত্বে সমাবেশে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন নাগরিক ছাত্র ঐক্যের সাংস্কৃতিক সম্পাদক রাসেল আহমেদ, ছাত্র ঐক্যের ঢাকা মহানগরের আহ্বায়ক এম এ আলিফসহ কেন্দ্রীয় ও ঢাকা মহানগরের নেতারা। সংহতি প্রকাশ করে বক্তব্য দেন নাগরিক যুব ঐক্যের সমন্বয়ক কবীর হাসান, ঐক্যবদ্ধ ছাত্র সমাজের সাধারণ সম্পাদক রিয়াফ হোসেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৫৩০ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৮, ২০২১
ডিএন/ওএইচ/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa